ঢালিউড সুপারস্টার শাকিব খান পারবে না কেন কলকাতার দেব পারলে!

Shakib Khan Dev
Shakib Khan Dev

টালিউডের সুপারস্টার দেব। পাশাপাশি তৃনমুল কংগ্রেসের এমপিও তিনি। ২০১৪ সালের লোকসভা নির্বাচনে ঘাটাল থেকে তৃণমূল কংগ্রেসের হয়ে অংশগ্রহণ করে জয়লাভ করেন। এরপর দীর্ঘ চার বছরে তিনি উপহার দিয়েছেন বেশকিছু ব্যাবসা সফল ছবি। এমনকি এমপি হয়েই তার ঝুলিতে এসেছে জুলফিকার, চ্যাম্প, আমাজন অভিযানের মত সুপার ডুপার হিট মুভি।

টালিউডের দেব যদি এমপি হয়ে একের পর এক ব্লকবাষ্টার মুভি উপহার দিতে পারেন তাহলে ঢালিউড সুপারস্টার শাকিব খান পারবেন না কেন? শাকিব খান নির্বাচন করছেন- এমন ঘোষণা দেওয়ার পরই ক্ষুব্ধ হয়েছেন অনেক শাকিব ভক্ত। তবে আবার অনেক ভক্ত দেবের উদাহরণ সামনে এনে শাকিব খানকে এমপি হিসেবে দেখতে চান। যদিও ভক্তদের ক্ষোভের মুখে শাকিব খান আপাতত নির্বাচন না করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। জানিয়েছেন, ভক্তরা যেহেতু চায় না তাই তিনি এখন নির্বাচন করবেন না। সিনেমা নিয়েই সামনের দিকে এগুতে চান।

এদিকে শাকিব খানের এমন সিদ্ধান্তে অনেক ভক্তেই দেবের উদাহরণ টেনে চাইছেন তিনি নির্বাচন করুক। কারণ এমপি হওয়ার পর দেবের কাজ করার হার বেড়ে গেছে। তার নির্বাচনে অংশ নেয়া নিয়ে শুরুতে কলকাতাতেও মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা গিয়েছিল। তবে নির্বাচনের পর সবাই বিষয়টিকে ইতিবাচক হিসেবেই নিয়েছেন। আর এমপি হওয়ার পরেই বেশি সফল নায়ক দেব। উপহার দিয়েছেন কেলোর কীর্তি, লাভ এক্সপ্রেস, জুলফিকার, চ্যাম্প, ককপিট, আমাজন অভিযান, কবীর, হইচই আনলিমিটেডের মতো সুপার-ডুপার হিট ছবি। যার দুটি ছবিরই প্রযোজক দেব নিজে। শুধু তাই নয়, এই গত চার বছরে দেবের ঝুলিতে এসেছে বেশকিছু অ্যাওয়ার্ড। তাই অভিনয়ের বিচারে এমপি হওয়ার পর দেবের কাজের মান ও কাজের প্রতি দায়িত্বশীলতা আরও বেড়েছে বলেই মনে করছেন টালিউডের দর্শক। পাশাপাশি তার কাজে খুব একটা বিরক্ত করছেন না কেউ। তিনি তার মন মতো কাজটা করে যাচ্ছেন।

আর সে কারণেই ঢালিউডের অনেকেই মনে করেন শাকিব খানও এমপি হলে ভালোই করতেন। কেননা ঢালিউডেও শাকিব খান নানা ষড়যন্ত্রের শিকার। শেষপর্যন্ত এমপি হয়ে গেলে তার বিরুদ্ধে অনেক ষড়যন্ত্র বন্ধ হয়ে যেত। এতে তিনি আরও বেশি মনযোগ দিয়ে কাজ করতে পারতেন। পাশাপাশি ধ্বংস হতে যাওয়া দেশের সিনেমা ইন্ডাস্ট্রিকে অনেক বেশি চাঙ্গা করতে পারতেন। আর বিশেষজ্ঞদের অনেকেরই মত যারা শাকিব খানের নির্বাচনে আসা নিয়ে বেশি সমালোচনা করেছেন, তাদের বেশি ভাগই ক্ষুব্ধ শাকিব খানের পছন্দের দল নিয়ে। কিন্তু তার জন্যে কি শাকিব খান দেশ সেবা এবং নিজের পছন্দকে বিসর্জন দেবে?

তবে শাকিব খান আবার নতুন করে তার সিদ্ধান্ত বদলাবেন কিনা তা এখনও জানা যায়নি। তবে গত ২৪ ঘন্টায় ফেসবুকে শাকিব খানের মনোনয়ন নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়ে যে সমালোচনা হয়েছে তাতে করে তিনি আপাতত আর নির্বাচনমুখী হবেন কিনা তা নিয়ে প্রশ্ন রয়েই যায়।

বন্ধুরা নির্বাচনে ঢালিউড সুপারস্টার শাকিব খানের অংশ গ্রহণ করা না করা নিয়ে এমন আলোচনা এবং সমালোচন আপনারা কিভাবে দেখছেন তা অবশ্যই কমেন্ট করে জানাবেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here