সিনেমা ইতিহাসে বিরল রেকর্ড শাকিবের ছবির শুটিংয়ের আগেই হল বুকিং

২০১৯ সালের ১০ই জানুয়ারি শুরু হবে বরেণ্য পরিচালক কাজী হায়াতের ৫০তম ছবি ‘বীর’ এর শুটিং। তার এই ছবিতে প্রথমবারের মত অভিনয় করবেন ঢালিউড সুপারস্টার শাকিব খান। ছবিটির নায়িকা কে থাকবেন তা এখনো চুড়ান্ত হয়নি। ছবিটি যৌথভাবে প্রযোজনা করবেন শাকিব খান ও তার বন্ধু মোহাম্মদ ইকবাল।

তবে নতুন খবর হচ্ছে, ছবিটির শুটিং শুরুর আগেই ইতিমধ্যে শুরু হয়েছে ছবিটির হল বুকিং। যা কিনা দেশের সিনেমা ইতিহাসে এক বিরল রেকর্ড। এ পর্যন্ত দেশের সিনেমার পর্দা বেশ কয়েকজন সুপারস্টার কাঁপিয়েছে, তবে কারো ছবির শুটিং শুরুর আগে এমন হল বুকিং শুরু হয়নি। কিন্তু তা শুধুমাত্র সম্ভব হলো বর্তমান সময়ের সুপারস্টার শাকিব খানের জন্য। কেননা তার ছবি মুক্তি পেলেই তা দেখার জন্য দেশে শুরু হয় দর্শক-ভক্তদের জনস্রোত। আর তাই সিনেমা হলের ব্যবসা টিকিয়ে রাখতে আগে থেকেই হল মালিকরা বুকিং শুরু করে দিয়েছেন।

এ বিষয়ে ছবির প্রযোজক মোহাম্মদ ইকবাল জানায়, যশোরের মণিহার, সিরাজগঞ্জের সাগরিকা, চট্টগ্রামের সিনেমাপ্লেক্স, শেরপুরের সত্যবতী, সিলেটের বিজিবির মতো বড় হলগুলো এরই মধ্যে ছবিটির জন্য অগ্রিম টাকা দিয়েছে। পরিচালক কাজী হায়াতও বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, প্রায় পাঁচ বছর পর পরিচালনায় ফিরছি। দীর্ঘ অনুপস্থিতির পরও হল মালিকরা আমার ছবির প্রতি আগ্রহ দেখিয়েছেন। উৎসাহ দেওয়ার জন্য অগ্রিম বুকিংও করেছেন। তাঁদের বিশ্বাসের প্রতি সম্মান জানিয়ে কথা দিচ্ছি, শাকিব খানকে নিয়ে ব্যতিক্রমী ছবি উপহার দেব।

এ বিষয়ে আরো কথা হয় যশোরের মনিহার সিনেমা হলের প্রতিনিধি আলী আকবরের সাথে। তিনি বলেন, ছবিটির সহপ্রযোজক শাকিব খান। তাঁর তত্ত্বাবধানে নির্মিত হবে ছবিটি। তা ছাড়া কাজী হায়াতের মতো গুণী পরিচালকও আছেন। তাই সাত পাঁচ না ভেবে আমরা ছবিটি নিয়েছি।

নতুন ছবি মুক্তি পেলে সাগরিকায় এখনো দর্শকের উপচে পড়া ভিড় দেখা যায়। হলটির প্রতিনিধি সাইফুল ইসলাম বলেন, হল চালানোর জন্য বছরে শাকিবের অন্তত ছয়টি ছবি দরকার। কিন্তু শাকিবের হাতে আছে তিন-চারটা ছবি। তাই আগেভাগেই বুকিং করে রাখা নিরাপদ মনে করেছি। তা ছাড়া কাজী হায়াতের সঙ্গে প্রথম কাজ করতে যাচ্ছেন শাকিব। ছবিটা অবশ্যই অন্য রকম কিছু হবে, এমনটা আশা করাই যায়।

ভিডিওঃ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here